রঞ্জু সরকার 
লাইট ক্যামেরা একশনে একসময় মুখরিত ছিল চলচ্চিত্রের সূতিকাগার সেই বিএফডিসি বা সবার পরিচিত এফডিসি প্রাঙ্গণ এখন প্রাণহীন, কর্মচাঞ্চল্যহীন নিরব। একটা সময় ছিল যখন একাধিক নির্মাতার টানা শুটিং এর কারনে জমজমাট থাকতো এফডিসি। এখন অনেকেই মশকরা করে বলেন, চলচ্চিত্র নির্মাণের ঐতিহ্যবাহী এফডিসি এখন রীতিমত শশাণঘাট। কাজকর্মহীন এফডিসিতে এখন অকারণ দলাদলি, কোন্দল আর আড্ডাবাজি চলে। প্রভাবশালী কিছু প্রযোজক এখানে প্রকাশ্যে বসে মদ খায়। স্টোররুমে মেয়ে নিয়ে ফুর্তি করে। এদের এসব জঘন্য কাজের প্রতিবাদ না করে এক শ্রেণীর নির্মাতা উল্টো এদের দালালিতে ব্যস্ত থাকে রীতিমত প্রতিযোগিতা করে।
চলচ্চিত্র নির্মাতাদের সংগঠন চলচ্চিত্র পরিচালক সমিতির অবস্থাও নাজুক। বছরের-পর-বছর এদের নিজেদের কোনো অফিসই নেই। এফডিসির ভেতরে পাঠাগারের জন্যে দেয়া একটা ভবনেই চলছে সমিতির অফিস। পৃথিবীর আর কোনো দেশে এমনটা ভাবাই যায় না।
এফডিসিতে কর্মচাঞ্চল্য নেই কেনো। এ প্রশ্নের জবাবে নির্মাতারা প্রশাসনিক কর্মকর্তাদের লাগামহীন দুর্নীতি, উপকরণের উচ্চমূল্য, চলচ্চিত্রের প্রতি ভালোবাসা না থাকাকে মূখ্য করে দেখছেন নির্মাতা ও কলাকুশলীরা।
প্রযোজক সমিতির সাবেক একজন নেতা বলেন, এফডিসিতে সম্পূর্ণ শুটিং করতে ৬ লাখ টাকা খরচ হয়। অথচ বাইরের কোন কোম্পানি থেকে লাইট ভাড়া লাগে মাত্র ২ থেকে আড়াই লাখ টাকা। আমরা এই বিষয়গুলো নিয়ে প্রায় ১০ বার এফডিসির এমডি এবং মন্ত্রনালয়ে ঘুরেছি। শুধু আশ্বাস দিচ্ছেন সবাই। কিন্তু বাস্তবে কিছুই হয়নি।
বাংলাদেশ চলচ্চিত্র পরিচালক সমিতির সভাপতি সোহানুর রহমান সোহান বলেন, এফডিসি হলো চলচ্চিত্র উন্নয়ন সংস্থা। কিন্তু এটা হয়ে গেছে একটা দোকান। এখানে চলচ্চিত্র নির্মাণ যন্ত্রপাতি যেমন ক্যামেরা, লাইট ও শ্যুটিং ফ্লোর, এডিটিং, ডাবিং, ষ্টুডিও ইত্যাদির ভাড়া মন মতো বাড়িয়ে রেখেছে যাতে আমরা চলচ্চিত্র নির্মাণ না করতে পারি। এখন এফডিসিতে যতজন কর্মকর্তা, কর্মচারী আছে সবাই দুর্নীতিবাজ হয়ে গেছে। আগামীতে হয়তো এটা বিষ্ফোড়ন হয়ে দেখা দিবে।
অন্য আরেক নির্মাতা বলেন, “দেশে সিনেমা হলের সংখ্যা ক্রমশ কমছে। কেউকেউ বলছেন প্রধানমন্ত্রী নাকি নির্দেশ দিয়েছেন সারাদেশে ৩০০ সিনেপ্লেক্স নির্মাণ করতে। কিন্তু আমরা তো এটা শুনিও নাই। আসল কথা হলো, সিনেমা হল কিংবা সিনেপ্লেক্স নির্মাণের পাশাপাশি চলচ্চিত্র সেক্টরকে শিল্প হিসেবে স্বীকৃতি দিয়ে চলচ্চিত্র নির্মাণের জন্যে বাৎসরিক ২-৩ পার্সেন্ট সুদে ব্যাংক ঋণের ব্যবস্থা করাটা আগে দরকার।”
Previous articleআজ অমিতাভ আহমেদ রানা ও সুব্রত মিত্র’র পরিচালনায় একক নাটক ‘তাহাদের গল্প’
Next articleনিজের সেই ভাইরাল ভিডিও দেখে ক্ষেপে গেলেন রিয়াজ

Leave a Reply