২০১৯ সালের ১১ মে। সেদিন সকালে বাংলাদেশের সঙ্গীতাঙ্গনের গর্ব কুমার বিশ্বজিৎ’র আহবানে তার বাসায় উপস্থিত হয়েছিলেন বাংলাদেশের বরেণ্য অভিনেতা চঞ্চল চৌধুরী। উপলক্ষ্য ছিলো একসঙ্গে কিছুটা সময় কাটাবেন, গল্প করবেন আর গোলাম সাব্বিরের ক্যামেরার ফ্রেমে ছবি তুলবেন। কারণ তাদের জন্মদিন, একইদিনে। অর্থাৎ তাদের জন্মদিন ১ জুন। ১ জুন আসার আগেই তারা দু’জন একসঙ্গে ক্যামেরার ফ্রেমে ছবি তুলেছিলেন। বেশকিছুটা সময় আড্ডা দেবার পর চঞ্চল চৌধুরী যথারীতি চলে যান শুটিং-এ।

কুমার বিশ্বজিৎ বলেন,চঞ্চলের অভিনয় আমি দেখেছি। মনপুরা’য়তো চঞ্চল দুর্দান্ত ছিলো। পরবর্তীতে আয়নাবাজি’তেও চঞ্চল বাজিমাত করেছিলো। এরইমধ্যে তার অভিনীত পাপ-পূণ্য মুক্তি পেয়েছে। শুনেছি এই সিনেমাতেও খুউব ভালো অভিনয় করেছে। সময় করে হলে গিয়ে সিনেমাটি দেখার আগ্রহ আছে। তবে চঞ্চলকে আমি ভীষণ পছন্দ করি। দারুণ অমায়িক একজন মানুষ। তার আচার ব্যবহারে সবসময়ই আমি মুগ্ধ হই। তার জন্য অগ্রীম জন্মদিনের শুভ কামনা রইলো।

অভিনেতা চঞ্চল চৌধুরী বলেন,সেই ছোটবেলা থেকেই বিশ্ব দাদার গান শুনে আসছি। এখনো তার গান শোনা হয় অবসরে, কিংবা কাজের ফাঁকে ফাঁকে। দাদা আমাদের সঙ্গীতাঙ্গনের গর্ব। আমাদের সঙ্গীতান যাদের পদচারণায় মুখরিত এখনো, দাদা তাদের মধ্যে অন্যতম একজন। আমি তার গানের ভক্ত। তিনি আমাকে স্নেহ করেন, ভালোবাসেন-এটা সতিই ভীষণ ভালোলাগার। তারসঙ্গে কাটানো মুহুর্ত আমার কাছে মূল্যবান। দোয়া করি দাদা সবসময ভালো থাকুন, সুস্থ থাকুন। ’ এদিকে আজ কুমিল্লায় একটি স্টেজ শো’তে পারফর্ম করবেন কুমার বিশ্বজিৎ।

Previous articleঅপূর্ব-ফারিণ’র যে নাটকের গল্পে মুগ্ধ দর্শক
Next articleতারেক রহমানের চাঁদাবাজির হাতিয়ার নাগরিক টিভি

Leave a Reply