‘মাইলস’ দেশের অন্যতম পপ ব্যান্ড ইতোমধ্যে চল্লিশ বছর পূর্ণ করেছে’। এবার দলটির অন্যতম সদস্য ভোকাল ও গিটারিস্ট শাফিন আহমেদ আবারও ‘মাইলস’ ছাড়ার ঘোষণা দিলেন। শনিবার (২৭ নভেম্বর) রাতে এক ভিডিও বার্তায় এ ঘোষণা দেন তিনি।

ভিডিও বার্তায় শাফিন বলেন, ‘মাইলসের সঙ্গে আমার পথ চলা সেই ১৯৭৯ সালে। অনেক সময় দিয়েছি, শ্রম দিয়েছি, অনেক ক্রিয়েটিভ কাজ হয়েছে। মাইলসের আজকের অবস্থানের পেছনে আমার কতটা অবদান সেটা সবাই জানেন। চলতি বছরের শুরুতে একটা সিদ্ধান্ত নেই মাইলসের বর্তমান লাইনআপের সঙ্গে আমার মিউজিকের কোনও কার্যক্রম সম্ভব হবে না। বর্তমান লাইনআপের সঙ্গে সব ধরনের কাজ থেকে বিরত থাকবো।’

তিনি আরও বলেন, ‘আমার সঙ্গীতের কার্যক্রম স্বাভাবিক থাকবে। কনসার্টেও থাকবো, রেকর্ডিংয়েও পাওয়া যাবে। আমরা প্রত্যাশা থাকবে মাইলস্ নামটি যেন অপব্যবহার না হয়। মাইলসের সঙ্গে যদি কাজ না করতে পারি তাহলে এখানেই মালইসের কার্যক্রম স্থগিত করাই বেস্ট ডিশিশন বলে আমি মনে করি। অন্য কেউ যেন মাইলস নামটি ব্যবহার না করে। ’

শাফিন আহমেদ ছাড়া মাইলস ব্যান্ডের লাইনআপ- হামিন আহমেদ (ভোকাল ও গিটার), মানাম আহমেদ (ভোকাল ও কি-বোর্ড), ইকবাল আসিফ জুয়েল (ভোকাল ও গিটার), সৈয়দ জিয়াউর রহমান তূর্য (ড্রামস)।

এর আগে ২০১০ সালের শুরুর দিকেও একবার ব্যক্তিগত কারণ দেখিয়ে ব্যান্ড থেকে সরে দাঁড়িয়েছিলেন শাফিন। যদিও কয়েক মাস পর আবারও দলে ফেরেন। এরপর ২০১৭ সালে অক্টোবরেও তিনি আরও একবার ব্যান্ডটি ছাড়ার কয়েক মাস পর দ্বন্দ্ব ভুলে ফের ব্যান্ডে ফিরেছিলেন।

ফরিদ রশিদের হাত ধরে ১৯৭৯ সালে প্রতিষ্ঠিত হয় ব্যান্ড দল ‘মাইলস’। দলটির প্রথম বাংলা গানের অ্যালবাম ‘প্রতিশ্রুতি’ প্রকাশ হয় ১৯৯১ সালে। তার আগে প্রকাশিত হয় দু’টি ইংরেজি গানের অ্যালবাম ‘মাইলস’ ও ‘এ স্টেপ ফারদার’।

মাইল্স’র জনপ্রিয় গানগুলোর মধ্যে রয়েছে- ‘চাঁদ তারা সূর্য’, ‘প্রথম প্রেমের মতো’, ‘গুঞ্জন শুনি’, ‘সে কোন দরদিয়া’, ‘ফিরিয়ে দাও’, ‘ধিকি ধিকি’, ‘পাহাড়ি মেয়ে’, ‘নীলা’, ‘কি যাদু’, ‘কতকাল খুঁজব তোমায়’, ‘হৃদয়হীনা’, ‘স্বপ্নভঙ্গ’, ‘জ্বালা জ্বালা’, ‘শেষ ঠিকানা’, ‘পিয়াসী মন’, ‘বলব না তোমাকে’, ‘জাতীয় সঙ্গীতের দ্বিতীয় লাইন’ ও ‘প্রিয়তমা মেঘ’।

Previous article‘পিকে ২’ নিয়ে আসছেন আমির খান রণবীর কাপুর
Next articleমীর – স্বস্তিকা স্বামী – স্ত্রী হবেন ‘বিজয়ার পরে’

Leave a Reply