বাংলা চলচ্চিত্রের চিত্রনায়িকা মাহিয়া মাহির পুরানো গুঞ্জনই সত্যি হয়েছে। আবারও বিয়ে করেছেন চিত্রনায়িকা মাহিয়া মাহি। দীর্ঘদিন ধরেই শোনা যাচ্ছিল- প্রথম স্বামী অপুর সঙ্গে ডিভোর্সের ঘোষণা দেওয়ার কিছুদিনের মধ্যেই প্রেমিক রাকিব সরকারকে গোপনে বিয়ে করেছেন তিনি। কিন্তু এটা মিডিয়া খবরের শিরোনাম হলেও এতদিন এই গোপন বিয়ের কথা শিকার করেননি নায়িকা।

কয়েকদিন আগেই ব্যক্তি জীবন নিয়ে আলোচনায় থাকা চিত্রনায়িকা মাহিয়া মাহি ঘোষণা দেন ১৩ সেপ্টেম্বর সারপ্রাইজ দেবেন। শোনা যাচ্ছে, নিজের দ্বিতীয় বিয়ের খবরকে মাহি সারপ্রাইজ হিসেবে তুলনা করেছেন।

গত ৬ সেপ্টেম্বর নিজের ফেসবুকে একটি স্ট্যাটাস দিয়েছিলেন তিনি। তাতে লিখেছিলেন, ‘১৩ সেপ্টেম্বর একটি সারপ্রাইজ দেবো,। ইনশাআল্লাহ..।’ তবে কিসের সারপ্রাইজ দেবেন, তা উল্লেখ করেননি। এরপর জল্পনা বাড়তে থাকে মাহিকে নিয়ে। ফিল্মপাড়ার অনেকে মনে করেন বিয়ে করেছেন মাহি। তা জানান দেবেন ১৩ সেপ্টেম্বর।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, রাকিব সরকার নামের একজনকে বিয়ে করেছেন মাহি। তিনি ব্যবসায়ী ও গাজীপুরে এক রাজনীতিক পরিবারের সন্তান। তিনি নিজেও রাজনীতির সঙ্গে জড়িত। এরই মধ্যে মাহিকে সাড়ে তিন কোটি টাকা মূল্যের নতুন একটি গাড়ি উপহার দিয়েছেন রাকিব। এটি মাহি ও রাকিব- দু’জনেরই দ্বিতীয় বিয়ে। রাকিবের আগের ঘরে দুই সন্তান রয়েছে। প্রথম স্ত্রীকে ডির্ভোস না দিলেও তারা বর্তমানে আলাদা থাকছেন।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক গাজীপুরের একটি সূত্র মাহি ও রাকিবের বিয়ের বিষয়টি নিশ্চিত করেছে। সূত্র জানায়, রাকিবের সঙ্গে পরিচয়ের পর থেকেই একসঙ্গে বিভিন্ন জায়গায় ঘোরাফেরা করতেন তারা। বিয়ের পর মাহিকে গাড়ি দিয়েছেন রাকিব।

গুঞ্জনের শুরুর দিকে এক সাক্ষাৎকারে মাহি রাকিবকে তার ‘ভালো বন্ধু’ উল্লেখ করেছিলেন। বলেছিলেন, ‘না, বিয়ে হয়নি, আমরা বন্ধু। শুধু বন্ধু নই, আমরা অনেক অনেক ভালো বন্ধু।’

বিয়ের গুঞ্জন প্রসঙ্গে রোববার (১২ সেপ্টেম্বর) মাহিকে একাধিকবার ফোন দিলে তাকে পাওয়া যায়নি।

মাহিকে নিয়ে নতুন বিয়ের গুঞ্জন শুরু হয় ১১ জুন। সে দিন নিজের ফেসবুকে একটি পোস্ট করেছিলেন মাহিয়া মাহি। ছবিতে মেহেদী রাঙা হাতে, নাকফুল আর কাতান শাড়িতে দেখা গেছে তাকে। ওই ছবির ক্যাপশনে অভিনেত্রী লিখেছেন, ‘আমি তোমাকে গান, সিনেমা সব জায়গায় অনুভব করতে পারি। আলহামদুলিল্লাহ।’

এই পোস্টে রাকিব সরকার মন্তব্য করেছেন, ‘কে তুমি ?’ উত্তরে মাহি লিখেছেন, ‘বউ’।

এদিকে, রাকিব সরকারের ফেসবুকেও একাধিক ছবি দেখা গেছে মাহির সঙ্গে। সবমিলিয়ে মাহিয়া মাহির দ্বিতীয় বিয়ের খবরটি এখন ‘ওপেন সিক্রেট’ বিষয়। এটা আর এখন সারপ্রাইজ নয়। তবে নেটিজেনরা অপেক্ষায় আছেন মাহির ঘোষিত সারপ্রাইজ কী সেটা দেখতে।

উল্লেখ্য, সিলেটের ব্যবসায়ী পারভেজ মাহমুদ অপুকে ২০১৬ সালে ভালোবেসে বিয়ে করেন মাহিয়া মাহি। বিয়ের এক বছর না যেতেই তাদের মধ্যে বিচ্ছেদের কথা শোনা যাচ্ছিল। অবশেষে সব জল্পনা-কল্পনার অবসান ঘটিয়ে গেল মে মাসে অপুর সঙ্গে বিচ্ছেদ ঘোষণা দেন মাহি।

Previous articleআলোচনায় সুস্মিতা সাহার নতুন গান “তুমি নেই বলে”
Next articleচিত্রনায়িকা উষ্ণ সড়ক দুর্ঘটনায় আহত

Leave a Reply