ঈদে শতাধিক প্রকাশিত নাটকের ভিড়ে পরিচালক বান্নাহর ‘মায়ের ডাক’ সাড়া ফেলেছে দর্শকমহলে। পাশাপাশি অর্জন করছে ভূয়সী প্রশংসা। ইউটিউব থেকে নাটকটি দেখে আবেগ আপ্লুত হয়ে মন্তব্য করছেন হাজার হাজার দর্শক। তারা তাদের অনুভূতি লিখছেন কমেন্ট বক্সে যা চোখ এড়ায়নি।

গতানুগতিক ধারার বাইরে এমন গল্প কেন্দ্র করে ঈদের নাটক বানিয়ে আলোচনায় এসেছে নাটক ‘মায়ের ডাক’। আকবর হায়দার মুন্নার প্রযোজনায় ও গল্পে এ নাটকটি পরিচালনা করেছেন মাবরুর রশিদ বান্নাহ।

‘মায়ের ডাক’ নাটকে মায়ের চরিত্রে অভিনয় করেছেন কিংবদন্তী অভিনেত্রী দিলারা জামান। তিন ভাইয়ের চরিত্রে অভিনয় করেছেন তাহসান খান, তৌসিফ মাহবুব ও জোভান। তাদের সঙ্গে ছিলেন মম, তাসনিয়া ফারিণ ও কেয়া পায়েল। বিশেষ একটি চরিত্রে দেখা গেছে শাহেদ আলীকে।

ঈদুল আজহায় বান্নাহ বেশ কয়েকটি নাটক পরিচালনা করেছেন । প্রকাশ পেয়েছে সুইপারম্যান, কালাই, টিচার, মায়ের ডাক, হোম পলিটিক্স। প্রত্যেকেটি কাজ প্রশংসা অর্জন করেছে। তবে ‘মায়ের ডাক’ থেকে লাখ লাখ মানুষের প্রশংসা পেয়ে পরিচালক বান্নাহ নিজেও আবেগ আপ্লুত হয়ে পড়ছেন। নাটকটি এই ঈদে ‘ক্রাউন এন্টারটেইনমেন্ট’ এর চাঙ্কে ঈদের ২য় দিন বাংলাভিশনে প্রচারিত হয় । ‘ক্রাউন ক্রিয়েশনস্’ এর বাণিজ্যিক ব্যবস্থাপনায় ধামাকা শপিং এর নিবেদনে ‘ক্লাব ইলেভেন’ ইউটিউব চ্যানেলে আপলোড হয়েছে, কো-স্পন্সর হিসেবে আছে আরডি ইউএসটি মিল্ক। গত একদিনে নাটকটি ১২ লাখেরও বেশি মানুষ নাটকটি দেখেছেন।

বান্নাহ বলেন, মানুষের প্রশংসা নিতে নিতে আমি ক্লান্ত৷ আনন্দে আমার কয়েকবার চোখ ভিজে গেছে। অনেকে আমাকে জানাচ্ছে, ভুল বোঝাবুঝির জন্য মাকে গিয়ে সরি বলছেন। বিশেষ করে প্রবাসীরা এ নাটক দেখে মায়ের কাছে যেতে চাইছেন।

তিনি আরও বলেন, আরেকটি সুখের অভিজ্ঞতা পরিবার নিয়ে সবাই কাজটি দেখছেন। একে অন্যকে দেখতে সাজেস্ট করছেন। নাটকটি দেখার পর মানুষ স্বেচ্ছায় শেয়ার করছেন। আবেগ মিশ্রিত কথায় ক্যাপশন লিখছেন। এই আনন্দের চেয়ে বড় হাজার হাজার ইমোশনাল মন্তব্য আমাকে ছুঁয়ে যাচ্ছে।

 

Previous articleপ্রশংসা কুঁড়াচ্ছে ফারহানের ‘সুইপার ম্যান’
Next articleদিপু হাজরা’র ঈদের নাটক “পরাণের মানুষ”

Leave a Reply