টলিউডরে জনপ্রিয় অভিনেত্রী পায়েল সরকার। তার অভিনয়ে মুগ্ধ না হয়ে উপায় নেই। প্রতিটি সিনেমায় বা ওয়েব সিরিজেই তিনি স্বকীয়তা দেখিয়ে ঝড় তোলেন। অভিনেত্রীর বয়স যত বাড়ছে পাল্লা দিয়ে ততই বাড়ছে তাঁর গ্ল্যামার। নতুন বছরের কোনও রেজলিউশন নয়, বরং জীবন যেভাবে চলছে সেভাবেই তিনিও চলতে চান।

ভারতীয় গণমাধ্যমের এক প্রশ্নের জবাবে এ অভিনেত্রী বলেন, শুধু শিল্পী নয়, কোনও নারীকেই অশালীন মন্তব্য করার বিরুদ্ধে আমি। একদমই সাপোর্ট করি না। এটার মধ্যে রাজনৈতিক কোনও অ্যাঙ্গেল আছে কিনা তা নিয়ে আমি মন্তব্য করতে চাই না। ব্যক্তিগতভাবে বলছি কোনও নারীকে অপমানজনক কথা বলা উচিত নয়। কোনও নারী যদি সেলিব্রিটি নাও হন তাঁর সঙ্গেও এটা হওয়া উচিত নয়।

নারী এবং সেলিব্রিটি, এই কম্বিনেশন মুখ খুললেই তাকে ট্রোল করা হয়, তাঁকে চুপ করিয়ে দেওয়া হয়। তবে এ কথা মানতে নারাজ তিনি। পায়েল; না একদমই নয়। আমিও আউটস্পোকেন, সব বিষয়ে স্পষ্ট করে কথা বলি। আমাকে তো ট্রোল করা হয় না। শিল্পী এবং নারী কথা বললেই যে মুখ বন্ধ করে দেওয়া হচ্ছে, অসোন্তোষের শিকার হচ্ছে, তা নয়। যাঁরা সেলিব্রিটি নন, তাঁদের ক্ষেত্রেও এটা হওয়া উচিত নয়। আজকের দিনে দাঁড়িয়ে কোনও সেন্সিবল মানুষ হলে মহিলা ও পুরুষের মধ্যে পার্থক্য করবেন না, এটা থাকা উচিত নয়। ইকুয়ালিটি টা থাকা উচিত।

Previous article‘রংবাজি দ্য লাফাঙ্গা’ ট্রেলারে অশ্লীলতার ছড়াছড়ি
Next articleআফরান নিশোর গল্পের নায়িকা মেহজাবীন

Leave a Reply