সরকারি অনুদানে নির্মাণাধীন ‘আশীর্বাদ’ ছবির সংগীত পরিচালনা থেকে সরে আসার ঘোষণা দিয়েছেন সাত বার জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার পাওয়া সংগীত পরিচালক ইমন সাহা। তিনি গত ২৬ ডিসেম্বর আমেরিকার ফ্লোরিডা থেকে এক চিঠিতে এই তথ্য জানিয়েছেন।

চিঠিতে তিনি উল্লেখ করে লিখেন- আমি সংগীত পরিচালক ইমন সাহা। গেলো কয়েকদিন ধরে আমি সামাজিক মাধ্যমে লক্ষ্য করছি কিছু অনলাইন পোর্টাল ও সংবাদমাধ্যমে একটি অপ্রীতিকর সংবাদে আমার নামকে সংযুক্ত করা হচ্ছে। ওই সব সংবাদ অনুযায়ী চলচ্চিত্র প্রযোজক এমডি ইকবালের অভিযোগ আমি তার সাবেক স্ত্রী জেনিফার ফেরদৌস এর কথা অনুযায়ী জনাব ইকবালের কাছে ২০ লক্ষ টাকা দাবী করেছি। আমি বলবো এই অভিযোগটি ভিত্তিহীন।

ইমন বলেন, আমার জানা মতে জনাবা জেনিফার ‘আশীর্বাদ’ চলচ্চিত্রের প্রযোজক ও কাহিনীকার। যেহেতু আমি পেশাদার সংগীত পরিচালক, তাই আশীর্বাদ ছবির পরিচালক মুস্তাফিজুর রহমান মানিকের প্রস্তাবে আমি ‘আশীর্বাদ’ চলচ্চিত্রের সবকটি গান ও আবহ সংগীত পরিচালনা করার জন্য চুক্তিবদ্ধ হই। আর এসব কিছুই সম্পাদন হয়েছে ভার্চুয়ালি। পেশাগত কাজের স্বার্থে এই ছবির পরিচালক, প্রযোজক, কন্ঠ শিল্পী, গীতিকার ও অন্যান্য কলাকুশলীর সঙ্গে আমার প্রায়ই কথা বলতে হয়েছে। জনাবা জেনিফারের সঙ্গেও আমার এই ছবির কাজ নিয়ে কথা হয়েছে। কিন্তু জীবনে কোনদিন তার সঙ্গে আমার সামনা-সামনি দেখা হয়নি। তার সঙ্গে আমার যতবারই সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমের সাহায্যে কথা হয়েছে, সেটা এই চলচ্চিত্রের কাজকে কেন্দ্র করেই।

পরিশেষে আমি বলতে চাই পরিচালক মোস্তাফিজুর রহমান মানিক এবং প্রযোজক জেনিফার ফেরদৌস এর কাছে আমার আন্তরিক অনুরোধ ‘আশীর্বাদ’ চলচ্চিত্রের সংগীত পরিচালনার দায়িত্ব আমি পালন করতে অপারগতা প্রকাশ করছি। এই ছবির সংগীত পরিচালনার কাজ থেকে আমি অব্যাহতি চাইছি। আশা করছি আমার ব্যক্তিগত, পারিবারিক এবং পেশাগত সম্মান রক্ষার্থে এই বিষয়ে আপনারা ভুল বুঝবেন না। ‘আশীর্বাদ’ ছবি এবং ছবির সঙ্গে জড়িত সকলের জন্যে শুভ কামনা।

এ ছবি দিয়ে প্রথমবার জুটি বেঁধে অভিনয় করছেন চিত্রনায়িকা মাহিয়া মাহি ও চিত্রনায়ক জিয়াউল রোশান। ২০১৯-২০২০ অর্থবছরে সরকারি অনুদানে পূর্ণদৈর্ঘ্য ১৬টি চলচ্চিত্রকে অনুদান দেয়া হয়েছে। এগুলোর মধ্যে অন্যতম ‘আশীর্বাদ’। এতে আরও অভিনয় করছেন কাজী হায়াৎ, রেবেকা রউফ, রেহেনা জলি সীমান্ত সহ আরও অনেকে।

Previous article‘নানা কারণে অত্যাচারের স্বাকীর হয়ে মামলা করতে বাধ্য হই’ 
Next articleপ্রথমবার বিজ্ঞাপনে সাইমন সাদিক

Leave a Reply