এন্ড্রু কিশোর। কালজয়ী বহু গানে কণ্ঠ দিয়ে জয় করেছেন, লক্ষ-কোটি মানুষের হৃদয়। উঠেছেন খ্যাতির চূড়ায়। দীর্ঘ ক্যারিয়ারে এমন অনেক গান গেয়েছেন, যা ছড়িয়ে দিয়েছেন হৃদয় থেকে হৃদয়ে। পেয়েছিলেন জনপ্রিয়তা। এক কথায় তিনি সংগীতের এক উজ্জ্বল নক্ষত্র। তাকে প্লেব্যাক সম্রাটও বলা হয়ে থাকে। সিনেমার গানে তার কণ্ঠ আজো মানুষের মন ছুঁয়ে যায়। বহু কালজয়ী গান তিনি রেখে গেছেন তার শ্রোতা-ভক্তদের জন্য। গত ৬ জুলাই না ফেরার দেশে চলে যান কিংবদন্তি এই শিল্পী। আজ বুধবার সুরের মায়া কাটিয়ে চলে যাওয়া বরেণ্য এই শিল্পীর জন্মদিন। ১৯৫৫ সালের ৪ নভেম্বর রাজশাহীতে জন্মগ্রহণ করেন তিনি। সেখানেই কেটেছে তার দুরন্ত শৈশব ও কৈশোর।

জীবন ফুরিয়ে গেলেও ভালোবাসা ফুরিয়ে যায় না। আজ আবারো ফিরে এলেন তিনি সবার মাঝে বেদনা-বিষাদ মাখা জন্মদিনে। মৃত্যুর পর এন্ড্রু কিশোরের এটাই প্রথম জন্মদিন। প্রয়াত এই সংগীত শিল্পীর জন্মদিন উপলক্ষে পরিবারের কোনো আয়োজন নেই। জানা গেছে, এন্ড্রু কিশোরের জন্মদিন উপলক্ষে শিল্পীর জন্মস্থান রাজশাহীতে ওস্তাদ আবদুল আজিজ স্মৃতি সংসদ নামে একটি সংগঠন দিনব্যাপী ‘কন্ঠরাজ এন্ড্রু কিশোর জন্মোৎসব’ শিরোনামে একটি উৎসবের আয়োজন করেছে। রাজশাহীর স্থানীয় এক রেস্তোরায় অনুষ্ঠিতব্য এ আয়োজনে রয়েছে জন্মোৎস কেক কাটা, তাকে নিয়ে স্মৃতিচারণ ও তার গাওয়া গান নিয়ে সংগীতানুষ্ঠান।

১৯৫৫ সালের ৪ নভেম্বর জন্মগ্রহণ করা এন্ড্রু কিশোর সিনেমার প্লেব্যাক শুরু করেন ১৯৭৭ সালে আলম খানের সুরে ‘মেইল ট্রেন’ ছবিতে ‘অচিনপুরের রাজকুমারী নেই যে তার কেউ’ নামের গান দিয়ে। প্রায় চার দশক সিনেমার গান গেয়েছেন তিনি। স্বীকৃতিস্বরুপ পেয়েছেন আটবার জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার।

Previous articleপ্রথমবার একসাথে গুরু-শিষ্য
Next articleকরোনায় আক্রান্ত অপূর্ব

Leave a Reply