থাইল্যান্ডকে বলা হয় যৌন বাসনার তীর্থ ভূমি। প্রতিবছর পতিতালয়দের সাথে সময় কাটাতে লাখ লাখ পর্যটক পাড়ি জমায় দেশটিতে। সেখানে পুরুষ পর্যটকরা যেমনি নারীদের ভাড়া করেন, ঠিক তেমনিভাবে নারীরাও খোঁজেন তাদের কাঙ্খিত যৌন সঙ্গী।

থাইল্যান্ডে যখন করোনার কারনে বেশিরভাগ পতিতারা ব্যাংকক শহর ছেড়ে নিজেদের গ্রামে ফিরে গেছেন, ঠিক তখন বাংলাদেশী তরুণী ফারাহ হক মাতাল অবস্থায় উলঙ্গ হয়ে পথচারিদের যৌন সঙ্গমের আহবান জানিয়েছেন। তার এই কান্ডকীর্তির ভিডিও এরইমাঝে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমগুলোতে ভাইরাল হয়ে গেছে।

জানা গেছে, গত এপ্রিল মাসে লকডাউন উপেক্ষা করেই ব্যাংককে ছুঁটে যান বাংলাদেশী এই তরুণী। সেখানে ইংরেজী শেখানোর নামে তিনি মূলত লিপ্ত হোন নানা পুরুষের সাথে অসভ্য রতিক্রিয়ায়। প্রতি রাতেই একাধিক পুরুষকে তিনি তার শয্যা সঙ্গী করেছেন। টাকার বিনিময়ে নয়, নিজের কাম বাসনা পূরণের জন্যই তিনি এই কাজে লিপ্ত হতেন। তিনি মাতাল অবস্থায় শুধু বেলাল্লাপনাই করেননি। নানান ধরনের অশ্লীল অঙ্গভঙ্গি করে আল্লাহু আকবর ধ্বনিও তুলেন। যা ইসলাম ধর্মে আঘাত হানে।

জানা গেছে, ফারাহ্ হক বিএনপি এক নেতার আত্মীয়।

ভিডিও –https://www.newsflare.com/video/372660/contains-nudity-naked-drunk-tourist-sparks-outrage-after-stripping-off-at-buddhist-shrine

Previous articleএখন ভালো আছেন ডিপজল
Next articleব্যাংকার থেকে বুলবুল আহমেদের নায়ক হয়ে ওঠার গল্প

Leave a Reply